বাংলাদেশ, রোববার, ২৯ মার্চ ২০২০

মুজিববর্ষ ও জাতীয় শিশু দিবস : রামু সেনাবাহিনীর রক্তদান কর্মসূচি

প্রকাশ: ২০২০-০৩-১৬ ১৮:০০:০৯ || আপডেট: ২০২০-০৩-১৬ ১৮:০০:১১

কক্সবাজার প্রতিনিধি »

স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ১০ পদাতিক ডিভিশন, রামু সেনানিবাসের রক্তদান কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।

কক্সবাজার সৈকতের লাবণী পয়েন্ট এলাকায় সেনা কল্যাণ ট্রাস্টের ‌’জলতরঙ্গ’ রেস্ট হাউস সংলগ্ন মাঠে সোমবার (১৬ মার্চ) বিকাল ৪টায় স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচির উদ্বোধন করেন ১০ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি ও কক্সবাজার এরিয়া কমান্ডার মেজর জেনারেল মো. মাঈন উল্লাহ চৌধুরী। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা পর্যন্ত চলা এ কর্মসূচীতে সামরিক-অসামরিকসহ শতাধিক ব্যক্তি স্বেচ্ছায় রক্ত দান করেন।

উদ্বোধনীতে জিওসি বলেন, জাতির পিতার অক্লান্ত ত্যাগ তিতীক্ষা ও অদম্য বলিষ্ট নেতৃত্ব না হলে বাংলাদেশের সৃষ্টি হতো না। তাই হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি গভীর শ্রদ্ধায় বিপদাপন্নদের কল্যাণে এ রক্তদান অনুষ্ঠান। জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষ্যে ১৭ মার্চ পদশোভাযাত্রার পাশাপাশি উদ্বোধন হবে সেনানিবাসে নবনির্মিত শিশুদের ক্লাব। জাতীয় শশিু দিবস উপলক্ষ্যে রামুর আবু বকর (রাঃ) ইসলামী সেন্টার এতিমখানায় এতিমদের মাঝে উন্নতমানের খাবার বিতরণ করা হবে। দিবসটি যথাযথভাবে উদ্ যাপন উপলক্ষ্যে সেনানিবাসের সকল ইউনিট ও স্থাপনাসহ সেনানিবাসের প্রবেশদ্বারে দৃষ্টিনন্দন আলোকসজ্জার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচিতে কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন, কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক) চেয়ারম্যান লে. কর্নেল (অব.) ফোরকান আহমদ, সিভিল সার্জন কক্সবাজার ডা. মাহবুবুর রহমান, অধিনায়ক র‍্যাব-১৫ সহ উর্দ্ধতন সামরিক-বেসামরিক কর্মকর্তা-কর্মচারীরা অংশগ্রহণ করেন।

সেনাবাহিনীর এ রক্তদান কর্মসূচীকে সমুদ্র সৈকতে আগত পর্যটকগন স্বাগত জানিয়ে দেশ সেবার পাশাপাশি এমন কার্যক্রম পরিচালনা করায় সেনাবাহিনীর ভূয়সী প্রশংসা করেন।

বাংলাধারা/এফএস/টিএম

ট্যাগ :