বাংলাদেশ, শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০

ঈদের ছুটিতেও স্বাভাবিক নিয়মে কাজ চালিয়ে যাবে বন্দর কর্তৃপক্ষ

প্রকাশ: ২০২০-০৫-২৩ ০৯:৪২:৩৩ || আপডেট: ২০২০-০৫-২৩ ০৯:৪২:৩৫

বাংলাধারা প্রতিবেদন »  

দেশের অর্থনীতি সচল রাখতে করোনাভাইরাস পরিস্থিতির মধ্যে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করে সরকারি সাধারণ ছুটিকালেও প্রতিনিয়ত অপারেশনাল কার্যক্রম চালু রেখেছে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ। মাঝখানে ২ দিনের মতো বিঘ্ন সৃষ্টি করেছে ঘূর্ণিঝড় আম্পান। তাই ঈদের ছুটিতে যাতে কনটেইনার ডেলিভারি স্বাভাবিক থাকে সে লক্ষ্যে বেশ কিছু উদ্যোগ নিয়েছে বন্দর কর্তৃপক্ষ।

আমদানিকারকরা যাতে পণ্য ডেলিভারি নেওয়ার জন্য শিপিং এজেন্ট থেকে ডেলিভারি অর্ডার গ্রহণ করতে পারেন সে লক্ষ্যে শিপিং এজেন্ট এবং ফ্রেইট ফরওয়ার্ডারদের স্বাভাবিক নিয়মে অফিস খোলা রাখতে বলা হয়েছে।

বিশেষ করে আমদানি পণ্যের ক্ষেত্রে অ্যাপ্রেইজমেন্ট বি/ই আউট পাসড়সহ সব ধরনের ডেলিভারি কার্যক্রমের জন্য কাস্টম হাউসের কর্মকর্তা-কর্মচারী নিয়োগসহ সার্বিক সুবিধা নিশ্চিত করার জন্য কাস্টম হাউসের কমিশনারকে অনুরোধ জানানো হয়েছে।

বিজিএমইএর আওতাধীন পোশাক শিল্পকারখানাসহ অন্যান্য সব কারখানা ও আমদানিকারকের ওয়্যার হাউস খোলা রেখে স্বাভাবিক সময়ের মতো ডেলিভারি নেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছে বন্দর কর্তৃপক্ষ।

বন্দরের সচিব মো. ওমর ফারুক বলেন, আসন্ন ঈদের ছুটিতে বন্দরের অপারেশনাল কার্যক্রম নিরবচ্ছিন্ন রাখার লক্ষ্যে নানা উদ্যোগ নিয়েছে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ। ঈদ-উল-ফিতরের দিন শুধু সকাল আটটা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত বন্দরের ডেলিভারিসহ স্বাভাবিক কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। এর আগে ও পরে কনটেইনার স্থানান্তর, সংরক্ষণ, ডেলিভারি, কনটেইনার ও কার্গো হ্যান্ডলিংসহ সব কার্যক্রম স্বাভাবিকঈদ-উল-ফিতরের দিন শুধু সকাল আটটা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত বন্দরের ডেলিভারিসহ স্বাভাবিক কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। এর আগে ও পরে কনটেইনার স্থানান্তর, সংরক্ষণ, ডেলিভারি, কনটেইনার ও কার্গো হ্যান্ডলিংসহ সব কার্যক্রম স্বাভাবিকভাবে চলবে।

বাংলাধারা/এফএস/টিএম  

ট্যাগ :